হিপ-জয়েন্ট ফ্র্যাকচার! কী করবেন?

প্রকাশের সময় : 2018-08-29 21:10:23 | প্রকাশক : Admin
হিপ-জয়েন্ট ফ্র্যাকচার! কী করবেন?

সিমেক ডেস্কঃ হিপ জয়েন্ট-এর সমস্যার কারণ আঘাত, আর্থ্রাইটিস (বাত), অস্টিওপোরোসিস (হাড়ের ঘনত্ব কমে যাওয়া), অভাস্কুলার নেক্রোসিস (হাড়ের মধ্যবর্তী রক্ত প্রবাহ বন্ধ হয়ে যাওয়া), অ্যাঙ্কোলাইজিং স্পন্ডিলাইটিস (মেরুদণ্ড ও তার পার্শ্ববর্তী পেশিগুলো ও হিপ জয়েন্ট-এর স্বাভাবিক সচলতা ব্যাহত হয়ে শক্ত হয়ে যাওয়া) ইত্যাদি।

চিকিৎসাঃ প্রথমে দেখতে হবে এই সমস্যায় আক্রান্ত ব্যক্তির বয়স এবং শারীরিক অবস্থা কেমন। বিশেষ করে হিপ জয়েন্টের সঙ্গে অন্যান্য শারীরিক সমস্যা যেমন হৃদযন্ত্রে সমস্যা, সুগার, ব্লাড প্রেশার স্বাভাবিক কি না। এই তথ্যগুলির উপর ভিত্তি করে চিকিৎসা নির্ধারণ করা হয়ে থাকে।

বয়সের সঙ্গে এমনিতেই আমাদের হাড়ের ঘনত্ব কমতে থাকে। তাই বয়স্কদের ক্ষেত্রে সহজেই হাড় ভাঙার আশঙ্কা থাকে।

আবার কমবয়সিদের ক্ষেত্রে খুব জোরে আঘাত লাগলে তবেই ফ্র্যাকচার হওয়ার আশঙ্কা থাকে। তাই চোট-আঘাত জনিত কারণে হিপ জয়েন্ট ভেঙে গেলে প্রথমে দেখতে হবে, আঘাত ঠিক কতটা গুরুতর। তখন ফ্র্যাকচার-এর ধরন-এর ওপর ভিত্তি করে চিকিৎসাপদ্ধতি নির্ধারণ করা হয়।

হিপ জয়েন্ট-এর বারংবার ডিসলোকেশন হলে, বা হাড়ে রক্ত সঞ্চালনকারী শিরা বা ধমনির রক্তপ্রবাহ ব্যাহত হলে, অভাস্কুলার নেক্রোসিস হওয়ার আশঙ্কা থেকে যায়।

প্রথমদিকেই এই সমস্যা ধরা পড়লে সাপ্লি−মেন্ট বা মাল্টিপল ড্রিল হোল বা মাশল প্রেডিকাল বোন গ্রাফটিং-এর সাহায্যে সমস্যা ঠিক করা যায়। তবে ক্ষতি বেশি হয়ে গেলে আংশিক বা টোটাল হিপ রিপ্লেসমেন্ট প্রয়োজন হতে পারে।

অন্যদিকে আঙ্কোলাইজিং স্পন্ডিলাইটিস-এর ক্ষেত্রে হিপ জয়েন্ট স্টিফ হয়ে গেলে রোগী তাঁর হাঁটাচলার ক্ষমতাও হারিয়ে ফেলেন। সেক্ষেত্রে হিপ জয়েন্ট রিপ্লেসমেন্ট করে রোগীকে স্বাভাবিক ভাবে হাঁটাচলার উপযোগী করে তোলা যায়।

একটি কথা মনে রাখা উচিৎ সঠিক চিকিৎসা করালে রোগী দ্রুত সুস্থ হয়ে ওঠেন।

বর্তমানে আধুনিক পদ্ধতিতে বেশ কিছু ইমপ্লান্টস বেরিয়েছে যেগুলির সহায়তায় অপারেশন পরবর্তী সময়েও কোনো প্রকার প্রতিবন্ধকতা ছাড়াই রোগী স্বাভাবিক জীবনযাপন করতে পারেন।

 

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ সরদার মোঃ শাহীন,
বার্তা সম্পাদকঃ ফোয়ারা ইয়াছমিন,
ব্যবস্থাপনা সম্পাদকঃ আবু মুসা,
সহঃ সম্পাদকঃ মোঃ শামছুজ্জামান

প্রকাশক কর্তৃক সিমেক ফাউন্ডেশন এর পক্ষে
বিএস প্রিন্টিং প্রেস, ৫২/২ টয়েনবি সার্কুলার রোড,
ওয়ারী, ঢাকা থেকে মুদ্রিত ও ৫৫, শোনিম টাওয়ার,
শাহ মখ্দুম এ্যাভিনিউ, সেক্টর # ১২, উত্তরা, ঢাকা-১২৩০ হতে প্রকাশিত।

বানিজ্যিক অফিসঃ ৫৫, শোনিম টাওয়ার,
শাহ মখ্দুম এ্যাভিনিউ, সেক্টর # ১২,
উত্তরা, ঢাকা,
ফোন: ০১৯১২৫২২০১৭, ৮৮০-২-৭৯১২৯২১
Email: simecnews@gmail.com