এবার দ্বিতীয় পদ্মা সেতু

প্রকাশের সময় : 2018-04-12 11:50:12 | প্রকাশক : Admin
�এবার দ্বিতীয় পদ্মা সেতু

সিমেক ডেস্কঃ এশীয় উন্নয়ন ব্যাংকের অর্থায়নে পাটুরিয়া-গোয়ালন্দ অবস্থানে দ্বিতীয় পদ্মা সেতু নির্মাণের পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে। আগামী ২০১৮-১৯ অর্থবছরের বাজেট প্রস্তাবনায় দ্বিতীয় পদ্মা সেতু নির্মাণের ঘোষণা দেয়ার প্রক্রিয়া শুরু করেছে সরকার। সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে এ তথ্য। জানা গেছে, ঋণ ব্যবহারের সক্ষমতা বাড়ায় আগামী চার বছরের মধ্যে এডিবির কাছ থেকে বাংলাদেশ সাড়ে ৮ বিলিয়ন ডলার ঋণ সহায়তা পাবে। এই অর্থ ব্যয় হবে দেশের অবকাঠামো উন্নয়ন, দক্ষ মানব সম্পদ গড়ে তোলা, জলবায়ু পরিবর্তনজনিত ক্ষতি সাধন এবং সামাজিক সুরক্ষার মতো বড় প্রকল্পগুলোতে।

দাতাদের ঋণ ব্যবহার সক্ষমতায় এশীয় দেশগুলোর মধ্যে এখন এগিয়ে আছে বাংলাদেশ। এ কারণে এদেশটিকে বিশেষ মর্যাদার চোখে দেখছে এডিবি। সংস্থাটির কাছ থেকে সবচেয়ে কম সুদে ২০২১ সালের মধ্যে বছরে প্রায় সাড়ে ৮ বিলিয়ন ডলার বা ৭০ হাজার কোটি টাকা ঋণ সহায়তা নিতে পারবে বাংলাদেশ। এই ঋণের বাইরে এবার নতুন করে দ্বিতীয় পদ্মা সেতু নির্মাণে এডিবির কাছে ঋণ সহায়তা চাওয়া হবে। সংস্থাটিকে লিড ডোনার করে ইসলামিক ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক (আইডিবি), জাপান ইন্টারন্যাশনাল কো-অপারেশন এজেন্সি (জাইকা), বিশ্বব্যাংক এবং অন্যান্য সহযোগী প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে ঋণ গ্রহণ করার পরিকল্পনা সরকারের রয়েছে।

জানা গেছে, এডিবিতে ইমেজ এতটাই ভাল যে, সংস্থাটি এখন বাংলাদেশকে সর্বোচ্চ পরিমাণ সহায়তা দিতে চাচ্ছে। এর আগে সংস্থাটি তাদের কান্ট্রি পার্টনারশিপ স্ট্রাটেজি ২০১১-২০১৫-তে ৫ বিলিয়ন ডলার ঋণ সহায়তা দিয়েছিল। বর্তমানে তার চেয়ে প্রায় ৩ বিলিয়ন ডলার বেশি পাচ্ছে। সংস্থাটির এডিএফ ঋণ সহায়তার দিক থেকে শীর্ষস্থানে রয়েছে বাংলাদেশের নাম। এডিবি বাংলাদেশের ঋণ ব্যবস্থাপনা নিয়ে গবেষণা করে দেখেছে, দেশটি ঋণ নিয়ে সঠিকভাবে ব্যবহার করতে পারছে। এমনভাবে এই ঋণ ব্যবহার হচ্ছে যার সুফল পাচ্ছে দেশের জনগণ। এজন্য এখন বাংলাদেশকে ইতিবাচক চোখে দেখছে এডিবি।

ইতোমধ্যে মাওয়া-জাজিরা পয়েন্টে দেশের বৃহৎ পদ্মা বহুমুখী সেতু বাস্তবায়নের কাজ শুরু হয়েছে। দ্বিতীয় পদ্মা সেতু হবে পাটুরিয়া-গোয়ালন্দে। জাইকা তাদের এক সমীক্ষায় এই স্থানটিকে সেতু নির্মাণের জন্য উপযুক্ত মনে করেছে। এ সেতু নির্মিত হলে রাজধানী ঢাকার সঙ্গে মেহেরপুর, চুয়াডাঙ্গা, কুষ্টিয়া, ঝিনাইদহ, মাগুরা, রাজবাড়ীর সড়ক যোগাযোগের দূরত্ব কমে যাবে। গোপালগঞ্জ, যশোর ও মাদারীপুর জেলার অংশবিশেষের দূরত্বও কমবে। মহাজোট সরকারের নির্বাচনী ইশতেহারেও পাটুরিয়া- গোয়ালন্দে দ্বিতীয় পদ্মা সেতু নির্মাণের বিষয়টি রয়েছে।

প্রস্তাবিত দ্বিতীয় পদ্মা সেতুর দৈর্ঘ্য হবে ৬ দশমিক ১০ কিলোমিটার। সেতুতে রেললাইনও থাকবে। দ্বিতীয় পদ্মা সেতুটির অর্থায়নে এবার এডিবিকে প্রধান ঋণদাতা সংস্থা হিসেবে নিতে চাচ্ছে সরকার। ইতোমধ্যে এডিবি এ ব্যাপারে বাংলাদেশকে ইতিবাচক সাড়া দিয়েছে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।

 

সম্পাদক ও প্রকাশকঃ সরদার মোঃ শাহীন,
বার্তা সম্পাদকঃ ফোয়ারা ইয়াছমিন,
ব্যবস্থাপনা সম্পাদকঃ আবু মুসা,
সহঃ সম্পাদকঃ মোঃ শামছুজ্জামান

প্রকাশক কর্তৃক সিমেক ফাউন্ডেশন এর পক্ষে
বিএস প্রিন্টিং প্রেস, ৫২/২ টয়েনবি সার্কুলার রোড,
ওয়ারী, ঢাকা থেকে মুদ্রিত ও ৫৫, শোনিম টাওয়ার,
শাহ মখ্দুম এ্যাভিনিউ, সেক্টর # ১২, উত্তরা, ঢাকা-১২৩০ হতে প্রকাশিত।

বানিজ্যিক অফিসঃ ৫৫, শোনিম টাওয়ার,
শাহ মখ্দুম এ্যাভিনিউ, সেক্টর # ১২,
উত্তরা, ঢাকা,
ফোন: ০১৯১২৫২২০১৭, ৮৮০-২-৭৯১২৯২১
Email: simecnews@gmail.com